ইসলামিক নাম

আবিয়া নামের অর্থ কি? আবিয়া নামের বাংলা, আরবি/ইসলামিক অর্থসমূহ

আবিয়া নামের আর্থ কি?

আসসালামু আলাইকুম,আশা করি আপনারা সবাই সুস্থ আছেন। আপনি কি আবিয়া নামের অর্থ এবং ইসলামিক আরবি সংস্কৃতিতে এর তাৎপর্য সম্পর্কে জানতে আগ্রহী? যদি তাই হয়, islaminam.com-এ এই আর্টিকেলটি পড়া অপরিহার্য। সন্তানের জন্য একটি নাম নির্ধারণ প্রত্যেক মা-বাবার জন্য একটি গুরুত্বপূর্ণ কর্তব্য।

নাম রাখা ইসলামের অন্যতম বিধান। তবে কাফের মুশরিক এবং কুখ্যাত পাপীদের নামানুসারে নাম রাখা হারাম। আপনি কি আপনার ছোট্ট মেয়ের জন্য আবিয়া নামটি বিবেচনা করছেন? সাম্প্রতিক বছরে আবিয়া নামটি উচ্চ জনপ্রিয়তা অর্জন করেছে।

এই নামটি বর্তমান যুগে উল্লেখযোগ্য প্রচলন লাভ করেছে। এটি একটি মুসলিম মেয়ে শিশুর জন্য উপযোগী এবং অর্থপূর্ণ নাম। এই নামের পেছনের অর্থ সম্পর্কে অনেকের জানা নেই।

আপনি কি চিন্তা করছেন আবিয়া নাম দেওয়া যাবে কি? এই নামের বাংলা অর্থ জানতে এই পোস্টটি পড়ুন।

আবিয়া নামের ইসলামিক অর্থ

ইসলামিক নাম আবিয়া মানে মহান । এই সুন্দর নামটি মুসলিম সমাজে প্রিয় হয়ে থাকে। এই নামটি সাধারণভাবে মেয়ের নাম হিসেবে ব্যবহৃত হয়।

মেয়ে নাম করার সময়, আবিয়া একটি অত্যন্ত জনপ্রিয় নাম।

See also  আবুদা নামের অর্থ কি? ইসলামিক আরবি বাংলা অর্থ

আবিয়া নামের আরবি বানান কি?

যেহেতু আবিয়া শব্দটি আরবি থেকে এসেছে। এটি একটি আরবি নাম যার আরবি বানান أبيا।

আবিয়া নামের বিস্তারিত বিবরণ

নামআবিয়া
ইংরেজি বানানAbia
আরবি বানানأبيا
লিঙ্গমেয়ে
নামের দৈর্ঘ্য ইংরেজিতে4 বর্ণ এবং 1 শব্দ
আধুনিক নামহ্যাঁ
ছোটো নামহ্যাঁ
বাংলা অর্থমহান
উৎসআরবি

আবিয়া নামের অর্থ ইংরেজিতে

আবিয়া নামের ইংরেজি অর্থ হলো – Abia

আবিয়া কি ইসলামিক নাম?

আবিয়া ইসলামিক পরিভাষার একটি নাম। আবিয়া হলো একটি আরবি শব্দ। আবিয়া নামটি সুন্দর একটি ইসলামিক নাম।

আবিয়া কোন লিঙ্গের নাম?

আবিয়া নামটি মেয়ের নাম রাখার ক্ষেত্রে উপযোগী। সাধারণত মেয়ের এই নামটি রাখা হয় না।

আবিয়া নামের বানান ইংরেজি ও আরবি

  • ইংরেজি– Abia
  • আরবি – أبيا

আ দিয়ে ছেলেদের ইসলামিক নাম সমূহ:

  • আদিয়ান
  • আবুজুহফা
  • আদেল
  • আইবিন
  • আহমদ
  • আলিম আলিয়াহ
  • আলারাফ
  • আবুলফারাজ
  • আবুসদ
  • আফতাবউদ্দিন
  • আদান
  • আবদেলমুফি
  • আফ্রাক
  • আজলান
  • আবদুলসবুর
  • আলসিদ্দিক
  • আলমুজিল
  • আফশার
  • আলমুক্তাদির
  • আবদুলমুকসিত
  • আলআলিম
  • আফরোজ
  • আবিস
  • আদিম
  • আসওয়ার
  • আসিফ আবদুল
  • আফরিশ
  • আরাশ
  • আঠার
  • আজারিয়াস
  • আফজাল
  • আব্দুলকুদুস
  • আবেদ
  • আমুন
  • আনসিল
  • আরফ
  • আরিফ রাশিদ
  • আখতাব বশীর
  • আলহাদি
  • আসেফ রাশিদ
  • আবদাররহমান
  • আরশিন
  • আবদুশশফি
  • আদুল আজিজ
  • আবান
  • আরজেন
  • আবদুল্লাহ
  • আকসার
  • আব্রাহাম
  • আইসন
  • See also  আদদার নামের অর্থ কি এবং ইসলাম কি বলে? (বিস্তারিত)

    আ দিয়ে মেয়েদের ইসলামিক নাম সমূহ:

  • আরশিয়া
  • আসবাত
  • আরিকাহ
  • আদলি
  • আওলা
  • আবদেলা
  • আজিনশা
  • আফসানেহ
  • আহিরা
  • আশফিন
  • আদিবা
  • আউলা
  • আওফা
  • আমানাহ
  • আরশাত
  • আবিদা
  • আসরাত
  • আত্তিয়া
  • আরিফিন
  • আওনি
  • আমায়া
  • আতা
  • আয়েশা
  • আহামদা
  • আবরাহা
  • আনুম
  • আনফা
  • আলা
  • আনফাস
  • আওনাহ
  • আদামা
  • আরওয়াহ
  • আজান
  • আশজা
  • আম্মু
  • আরহানা
  • আবি নুবলি
  • আনসা
  • আরমিয়া
  • আইলিয়াহ
  • আরসিল
  • আম্মার
  • আলানা
  • আবিয়া
  • আমারে
  • আনসাত
  • আজরিন
  • আর্তাহ
  • আদালত
  • আরসিন
  • আমাদের অনুরোধ আপনার মেয়ের নাম “আবিয়া ” নির্বাচন করার আগে আপনার স্থানীয় মসজিদের ইমাম বা একজন প্রতিষ্ঠিত ইমামের সাথে পরামর্শ করার জন্য সুপার্শ্ব আপনাকে উপযুক্ত ধর্মীয় প্রাধ্যাপকের সাথে যোগাযোগ করা। শুধুমাত্র অনলাইনে “আবিয়া ” নামের অর্থ খোঁজার সাথে সাথে আপনার সন্তানের নাম নির্বাচন করা উচিত নয়, কারণ অমিলের কারণে ভুলে পর্যাপ্ত নয় হতে পারে। অতএব, আমরা আপনাকে “আবিয়া ” নামটি সত্যিই ইসলামিক নাম হিসেবে ব্যবহার করা যেতে পারে কিনা এবং এই নামের ব্যবহার করা উপযুক্ত কিনা তা জানতে একটি বিশ্বস্ত ধর্মীয় পরিচায়কের সাথে যোগাযোগ করার পরামর্শ দিচ্ছি।

    শুভো Avatar

    Leave a Reply

    Your email address will not be published. Required fields are marked *

    পোষ্টটি লিখেছেন যিনিঃ